Breaking News
Home / খেলার খবর / বাজবলে প্রোটিয়া বধের স্বপ্ন দেখছে ইংল্যান্ড

বাজবলে প্রোটিয়া বধের স্বপ্ন দেখছে ইংল্যান্ড

গত কিছুদিন টেস্টে উড়ছে ইংলিশরা। কোচ ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম ও অধিনায়ক বেন স্টোকস মিলে টেস্ট খেলাটার খোলনলচেই বদলে দিচ্ছেন এমনটাই মত অনেকের। তবে এবার বড় পরীক্ষার সামনে ইংল্যান্ডের বাজবল। তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজে থ্রি লায়নরা মুখোমুখি হচ্ছে প্রোটিয়াদের।

ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা দক্ষিণ আফ্রিকা হুমকি দিয়ে রেখেছে বাজবলকে অকার্যকর করে দেওয়ার।সিরিজের প্রথম টেস্টে বুধবার (১৭ আগস্ট) মুখোমুখি হবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড এবং দক্ষিণ আফ্রিকা। লর্ডসে ম্যাচটি মাঠে গড়াবে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৪টায়।

সাদা পোশাকে দুর্দান্ত সময় পার করছে থ্রি লায়নরা। কিছুদিন আগে জিততে ভুলে যাওয়া ইংলিশরা নিউজিল্যান্ড ভারতকে হারিয়ে টানা চার ম্যাচে জয় রয়েছে ইংলিশদের। ইংলিশদের এই বদলে যাওয়ার পেছনে অনেকেই দেখছেন ব্রেন্ডন ম্যাককুলামের কৃতিত্ব। নিউজিল্যান্ডের সাবেক এই আক্রমণাত্মক ব্যাটারের অধীনে টেস্টে ক্রিকেটে নতুন এক যুগের সূচনা করেছে ইংল্যান্ড।

বাজবল নামের বিশেষ এক ক্রিকেট খেলছে ইংলিশরা। যে ক্রিকেটের শেষ কথা আক্রমণ। প্রতিপক্ষের মনোবল গুঁড়িয়ে দিতে আক্রমণ, প্রতিপক্ষকে বাগে আনতেও আক্রমণ। নিজের খেলোয়াড়ি জীবনে আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ের সঙ্গে আপস না করা ম্যাককুলাম কোচ হয়েও ধরে রেখেছেন সে দর্শন, যা তিনি ছড়িয়ে দিয়েছেন জো রুট-বেয়ারস্টোদের মধ্যে।

আর নেতার ভূমিকায় বেন স্টোকসও ঠিক তার মনের মতোই। সেই ধারায় এবার দক্ষিণ আফ্রিকাকে আতিথ্য দিচ্ছে বেন স্টোকসের দল। দুর্দান্ত ছন্দে রয়েছেন জো রুট, জনি বেয়ারস্টো। দলের প্রয়োজনে জ্বলে উঠছেন জ্যাক ক্রোলে, অ্যালেক্স লেস, ওলি পোপরা। তবে তারপরও ইংলিশ ব্যাটিং লাইনআপ অতিমাত্রায় জো রুট আর বেয়ারস্টো নির্ভর বলে অনেকের মত।

বল হাতে অবশ্য দুর্দান্ত ব্রড, অ্যান্ডারসনরা। গতমাসে ৪০ পেরিয়ে যাওয়া অ্যান্ডারসন ইংলিশ কন্ডিশনে এখনো দারুণ ভয়ংকর। সুইংয়ের বিষে প্রতিপক্ষকে নীল করতে তার সঙ্গী হিসেবে ব্রড তো আছেই। গত দুই দশকে ১৭২ টেস্ট খেলে ৬৫৭ উইকেট নিয়েছেন ‘বার্নলি লারা’ খ্যাত অ্যান্ডারসন।

টেস্ট ক্রিকেটে পেসার হিসেবে সর্বোচ্চ উইকেটের মালিক জিমির সামনে সুযোগ উইকেটের ট্যালিটা আরেকটু সমৃদ্ধ করে কিংবদন্তি ওয়ার্নকে ছোঁয়ার আরও কাছাকাছি যাওয়া। ১৪৫ টেস্টে ৭০৮ উইকেট নিয়ে টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি এ বছরের মার্চে প্রয়াত হওয়া ওয়ার্ন।

আক্রমণাত্মক ক্রিকেট খেলার ধারাবাহিকতা ধরে রাখার কথা বলছেন স্টোকস। দক্ষিণ আফ্রিকাও প্রস্তুত তাদের কৌশল নিয়ে। গত ৫ ম্যাচে ৩টি টেস্টেই জিতেছে। ডিন এলগার, মার্করাম, ডুসেনরা দারুণ সময় কাটাচ্ছেন। রাবাদা, মাহারাজ, এনগিদিরা জ্বলে উঠলে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হবে ম্যাচে।

তবে ম্যাচ শুরুর আগেই কথার লড়াইয়ে জড়িয়ে পড়েছে দুদল। শুরুটা করেছেন প্রোটিয়া কোচ মার্ক বাউচার। কয়েকদিন আগে তিনি সন্দেহ প্রকাশ করেন বাজবলের কার্যকরিতা নিয়ে। তার কথায় সুর মিলিয়েছেন অধিনায়ক ডিন এলগারও। তিনি মনে করেন, দীর্ঘমেয়াদে ‘বাজবল’ ইংলিশদের ক্ষতির কারণ হতে পারে।

তিনি বলেছিলেন, ‘ইংল্যান্ডের নতুন কৌশল রোমাঞ্চকর। কিন্তু আমি এর ভবিষ্যৎ দেখছি না। কারণ, টেস্ট ক্রিকেটে অনেক কিছু সময়ের সঙ্গে হারিয়ে যায়।’ ইংলিশ অধিনায়ক বেন স্টোকস অবশ্য এসব কথায় পাত্তা দিচ্ছে না। লর্ডসে যে তার দল বাজবলেই প্রোটিয়াবধ করার পরিকল্পনা আঁটছে তা সরাসরি জানিয়ে দেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘মনে হচ্ছে প্রতিপক্ষ আগ্রাসী কৌশল নিয়ে অনেক বেশি কথা বলছে। তবে আমরা শুধু আমাদের খেলাতেই মনোযোগ দিচ্ছি। আমাদের খেলার নিজস্ব একটা ধরন আছে, তাদেরও আছে। দিন শেষে এটা ব্যাট বলের লড়াই, এই লড়াইয়ে যে ভালো খেলবে তাদেরই জয়ের সম্ভাবনা বেশি।

আমি এই ভেবে খুশি যে ডিন এলগার ও তার দল ‘বাজবল’ নিয়ে আগ্রহী না হয়েও এই কৌশল নিয়ে কথা বলেই যাচ্ছে।’ খোঁচাটা মোক্ষম ভাষাতেই দিয়েছেন স্টোকসি!

Check Also

পুরো বিশ্বকে চমকিয়ে সবচেয়ে ভয়ংকর স্লোয়ার ফাস্ট বোলার এক টাইগার পেসার

২০১৫ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে ঘরের মাঠে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখেন মুস্তাফিজুর রহমান। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.