Breaking News
Home / বাংলা হেল্‌থ / মাহমুদউল্লাহর বক্তব্য পাপনের কাছে ‘আবেগের বিস্ফোরণ’

মাহমুদউল্লাহর বক্তব্য পাপনের কাছে ‘আবেগের বিস্ফোরণ’

স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে হারের পর সিনিয়র ক্রিকেটারদের কড়া সমালোচনা করেছিলেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। সেই সমালোচনা গায়ে মেখেই টানা দুই ম্যাচ জিতে সুপার টুয়েলভ নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। পাপুয়া নিউগিনিকে বিশাল ব্যবধানে হারানোর দিনে বিসিবি প্রধানের সমালোচনার জবাব দেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

দুই দিনের ব্যবধানে স্থানীয় এক টিভি চ্যানেল দেওয়া সাক্ষাৎকারে মাহমুদউল্লাহর বক্তব্যে পাল্টা জবাব দিলেন পাপন। অথচ বিশ্বকাপের ময়দানে যেখানে ক্রিকেট নিয়েই আলোচনাটা হওয়ার কথা, সেখানে বাইরের বিষয় নিয়েই আলোচনা হচ্ছে প্রচুর।

প্রথম রাউন্ডে নিজেদের প্রথম ম্যাচে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে হারের পর ক্ষোভ উগড়ে দেন পাপন। দল ও দলের সিনিয়র ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স নিয়ে বিরক্তি প্রকাশ করেন বিসিবি সভাপতি। তার কথার প্রেক্ষিতে মাহমুদউল্লাহ পিএনজি ম্যাচের পর জানান, মানুষ হিসেবে তারাও ভুল করেন; কিন্তু এভাবে ছোট করা উচিত নয়, তাদের নিবেদন নিয়ে প্রশ্ন তোলা ঠিক নয়।

টি-টোয়েন্টি অধিনায়কের এমন মন্তব্যে ফের কথা বলেছেন বিসিবি সভাপতি। মাহমুদউল্লাহর মন্তব্যকে ‘আবেগের বিস্ফোরণ’ হিসেবে দেখছেন পাপন। তার মতে, বিষয়টি ব্যক্তিগতভাবে নিয়েছে বাংলাদেশ অধিনায়ক।

বাংলাদেশের একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলের উদ্ধৃতি দিয়ে ক্রিকেটবিষয়ক ওয়েবসাইট ক্রিকবাজ তাদের প্রতিবেদনে পাপনের বক্তব্য তুলে ধরেছে এভাবে, ‘আমি দুটি ব্যাপার বুঝতে পারছি না। সে (মাহমুদউল্লাহ) বলেছে নিবেদন নিয়ে প্রশ্ন তোলায় তাদের খারাপ লাগে।

আমার মনে হয় না কেউ তাদের নিবেদন নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে। আমি একবারের জন্যও ক্রিকেটারদের নিবেদন নিয়ে প্রশ্ন তুলিনি। দ্বিতীয়ত, সে বলেছে আমি তাদের ছোট করেছি, কিন্তু আমার মনে হয় এটা আবেগের বিস্ফোরণ। আমি আমার আগের জায়গা থেকেই বলছি, প্রথম ম্যাচে তাদের অ্যাপ্রোচ, শারীরী ভাষা ও পরিকল্পনা নিয়ে আমি সন্তুষ্ট নই।’

পিএনজির বিপক্ষে ম্যাচের পর সংবাদ সম্মেলনে মাহমুদউল্লাহ বলেছিলেন, ‘আমরা মানুষ, আমরা ভুল করি। এ কারণে একেবারে ছোট করে ফেলা ঠিক নয়। আমরা যখন খেলি, পুরো দেশ একসঙ্গে খেলি। আমাদের চেয়ে ফিলিংস কারও বেশি নয় আমার মনে হয়। সমালোচনা অবশ্যই হবে, খারাপ খেলেছি। তবে একেবারেই ছোট করে ফেলা ঠিক নয়। আমাদের সবার কাছেই খারাপ লেগেছে। সমালোচনা তো হবেই। কিন্তু এই সমালোচনা যেন স্বাস্থ্যকর হয়।’

মাহমুদউল্লাহর মন্তব্যে অবাক হয়েছেন পাপন। তার মনে হয়েছে, বিষয়টি ব্যক্তিগতভাবে নিয়েছেন মাহমুদউল্লাহ। বিসিবি সভাপতি বলেছেন, ‘আমার মনে হয় মাহমুদউল্লাহ ও বাকি ক্রিকেটারদের একটা বিষয় বোঝা উচিত যে,

তারা যেমন বলেছে তারা মানুষ, একইভাবে দলের ভক্ত-সমর্থক ও বিসিবির সবাইও মানুষ। এখানে ব্যক্তিগতভাবে নেওয়ার কিছু নেই। কারণ যা বলেছি, সেটা দল ও দেশকে নিয়ে, ব্যক্তিগতভাবে কারও বিপক্ষে নয়।’

গত সপ্তাহে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে হারের পর সংবাদমাধ্যমকে বিসিবি সভাপতি বলেছিলেন, ‘দল হারতেই পারে। কিন্তু অ্যাপ্রোচ তো ঠিক থাকবে। ম্যাচে খেলার অ্যাপ্রোচ, শারীরিক ভাষা কিছুই ঠিক ছিল না। কোনোভাবেই না। প্রথম ৬ ওভারে সুবিধা থাকে। তখন মারতে গেলে উইকেট যাবে, সেটা স্বাভাবিক। কিন্তু দুটি উইকেট যাওয়ার পর সাকিব, মুশফিক, মাহমুদউল্লাহ যেভাবে ব্যাটিং করেছে, সেখানেই তো ম্যাচ হেরে গেছি আমরা।’

Check Also

সবাইকে অবাক করে দিয়ে ভারতের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির নতুন অধিনায়ক হলেন “রোহিত শর্মা”

ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই) দিলো বড় ঘোষণা। দেশটির ওয়ানডে অধিনায়কও এখন রোহিত শর্মা। একই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *